বুধবার ১৩ নভেম্বর ২০১৯ ২৯ কার্তিক ১৪২৬
 
অর্থ-বাণিজ্য
সিপিডি টাকা পায় কোথায়, প্রশ্ন অর্থমন্ত্রীর
সিপিডি টাকা পায় কোথায়, প্রশ্ন অর্থমন্ত্রীর





নিজস্ব প্রতিবেদক
Monday, Nov 4, 2019, 9:36 pm
Update: 04.11.2019, 9:37:14 pm
 @palabadalnet

ঢাকা: বেসরকারি গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগের (সিপিডি) টাকা কোথা থেকে আসে, এমন প্রশ্ন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের। আজ সোমবার রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে নিজ দপ্তরে জাপান সরকারের একটি প্রতিনিধি দলের সঙ্গে অনুষ্ঠিত বৈঠক শেষে অর্থমন্ত্রী সাংবাদিকদের কাছে প্রশ্নটি করেন।

গতকাল রোববার ‘বাংলাদেশের উন্নয়নের স্বাধীন পর্যালোচনা: ২০১৯-২০ অর্থবছর প্রারম্ভিক মূল্যায়ন’ শীর্ষক সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধিকে ‘সুতা কাটা ঘুড়ির’ সঙ্গে তুলনা করেন সিপিডি সম্মানীয় ফেলো দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য। ওই দিন তিনি বলেন, কাটা সুতার সঙ্গে যেমন ঘুড়ির সম্পর্ক থাকে না, তেমনি বাংলাদেশের অর্থনীতিতেও প্রবৃদ্ধির সঙ্গে অর্থনীতির সম্পর্ক নেই।

এ নিয়ে জানতে চাইলে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘সিপিডি গবেষণা প্রতিষ্ঠান। কিন্তু তাদের টাকা কোথা থেকে আসে? সরকারের তো রাজস্ব পাওয়ার জায়গা আছে। তারা কোথা থেকে টাকা পায়? এ প্রশ্নের জবাব আমি চাই। এটা সম্পর্কে আমি তাদের কাছ থেকে পরিষ্কার বিবৃতি চাই।’

অর্থমন্ত্রীর করা অন্য প্রশ্নগুলো হচ্ছে, সিপিডি কতজন লোকের চাকরির ব্যবস্থা করছে? কোন কোন প্রকল্পে বিনিয়োগ করছে? তারা এ দেশের কারও না কারও জন্য কাজ করতে টাকা পায়। সেই কাজটা তারা করছে কিনা, তাও জানা দরকার।

অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘সিপিডির অবস্থান এক রকম এবং আমাদের এক রকম। একটা কথা আছে, যার নুন খাই তার গুণ গাই। আমি নুন খাই দেশের জনগণের। আমি গুণকীর্তন করব দেশের জনগণের। উনারা কারটা খান, আমি জানি না। উনারা কার গুণকীর্তন করেন, তাও আমি জানি না।’ তবে সিপিডি যে সবসময় খারাপ বলে, তেমনটা তিনি মনে করেন না। তিনি বলেন, সিপিডি কিছু গঠনমূলক তথ্যও দেয়।

পালাবদল/এসএম


  এই বিভাগের আরো খবর  
  সর্বশেষ খবর  
  সবচেয়ে বেশি পঠিত  


Copyright © 2019
All rights reserved
সম্পাদক : সরদার ফরিদ আহমদ
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৩৭৩/৩২ ফ্রি স্কুল স্ট্রিট, হাতিরপুল, কলাবাগান, ঢাকা-১২০৫
ফোন : +৮৮-০১৮৫২-০২১৫৩২, ই-মেইল : [email protected]
সম্পাদক : সরদার ফরিদ আহমদ
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৩৭৩/৩২ ফ্রি স্কুল স্ট্রিট, হাতিরপুল, কলাবাগান, ঢাকা-১২০৫
ফোন : +৮৮-০১৮৫২-০২১৫৩২, ই-মেইল : [email protected]